“যদি তোর ডাক শোনে কেউ না আসে তবে একলা চলোরে”- এই শিরোনামে দুইজন ব্যক্তির গান আছে, একজন অতিপরিচিত রবিন্দ্রনাথ ঠাকুর আরেকজন বর্তমান সময়ের জীবনমুখী থারার অন্যতম শিল্পী নচিবেকা চক্রবর্তী। গানের শিরোনামটা এক হলেও ভাব সম্পূর্ণ বিপরীত। রবি ঠাকুর অদম্য উৎসাহে সামনে এগিয়ে যেতে বলেছেন আর নচিকেতা বুঝিয়ে দিয়েছেন জীবটা আসলে কি। গান দু’টি নিচে দেওয়া হল

যদি তোর       ডাক শুনে কেউ না আসে       তবে       একলা চলো রে।
একলা চলো,       একলা চলো,       একলা চলো,       একলা চলো রে॥
যদি       কেউ কথা না কয়,       ওরে ওরে ও অভাগা,
যদি       সবাই থাকে মুখ ফিরায়ে       সবাই করে ভয়—
তবে        পরান খুলে
ও তুই       মুখ ফুটে তোর মনের কথা        একলা বলো রে॥
যদি        সবাই ফিরে যায়      , ওরে ওরে ও অভাগা,
যদি        গহন পথে যাবার কালে কেউ ফিরে না চায়—
তবে        পথের কাঁটা
ও তুই       রক্তমাখা চরণতলে        একলা দলো রে॥
যদি        আলো না ধরে,       ওরে ওরে ও অভাগা,
যদি        ঝড়-বাদলে আঁধার রাতে        দুয়ার দেয় ঘরে—
তবে        বজ্রানলে
আপন        বুকের পাঁজর জ্বালিয়ে নিয়ে        একলা জ্বলো রে॥

লিখেছেন রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর  


যদি তোর ডাক শুনে কেউ না আসে,
তবেই নাকি একলা চলতে হয়!

একলা মানুষ মাতৃগর্ভে একলা মানুষ চিতায়
একলা পুরুষ কর্তব্যে একলা পুরুষ পিতায়
আর মধ্যিখানের বাকিটা সময়
একলা না থাকার অভিনয়

যদি তোর ডাক শুনে কেউ না আসে,
তবেই নাকি একলা চলতে হয়!

এক পায়েতে দাড়িয়ে তাল গাছটাও একা
দিনের শেষে ঘুমের দেশে একলা সে দেশ দেখা
যদি কেউ কথা না কয়
ওরে ও রে ও অভাগা কেউ কথা না কয়
তাতেও কিছু যায় না এসে,
তাতেও কিছু যায় না এসে বোঝে যদি তোর মনেরই কথা
মনের কথা বোঝাবারে একলা বলতে হয়

যদি তোর ডাক শুনে কেউ না আসে,
তবেই নাকি একলা চলতে হয়!

একলা তুমি ভাবাদর্শে একলা চিন্তায়
তোমার ভাবনা সূর্য হয়ে ডুববে যে সন্ধ্যায়
যদি সবাই ফিরে যায়
ওরে ও রে ও অভাগা সবাই ফিরে যায়
ফিরবে না যে জানবি সে তোর,
ফিরবে না যে জানবি সে তোর ভাবনার মোড়কে আছে ডুবে
ছিড়বে মোড়ক ফিরবে সে তার অপনও কুলায়

যদি তোর ডাক শুনে কেউ না আসে,
তবেই নাকি একলা চলতে হয়!

একলা মানুষ মাতৃগর্ভে একলা মানুষ চিতায়
একলা পুরুষ কর্তব্যে একলা পুরুষ পিতায়
আর মধ্যিখানের বাকিটা সময়
একলা না থাকার অভিনয়

যদি তোর ডাক শুনে কেউ না আসে,
তবেই নাকি একলা চলতে হয়!

-নচিকেতা

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *